সর্বশেষ

36.7 C
Rajshahi
শুক্রবার, জুন ২১, ২০২৪

যশোরে টাকা ও সোনা নিয়ে উধাও স্ত্রী

টপ নিউজ ডেস্ক: যশোরের শার্শা উপজেলায় শিশু সন্তানকে ফেলে প্রেমিকের হাত ধরে পালিয়েছেন এক স্ত্রী। সঙ্গে নিয়ে গেছেন স্বামীর জমান টাকা ও সোনা। স্ত্রী রোজিনা খাতুনের বিরুদ্ধে এমন অভিযোগ এনে আদালতে মামলা করেছেন স্বামী নজরুল ইসলাম।

গত বুধবার ২২ মার্চ  বিকেলে শার্শায় পাড়িয়ার ঘোপ গ্রামের গোলাম মোস্তফার ছেলে নজরুল ইসলাম আদালতে এ মামলা করেন।

উক্ত মামলার আসামিরা হলেন, বাদীর স্ত্রী একই গ্রামের মৃত বাবু ইসলামের মেয়ে রোজিনা খাতুন, একই গ্রামের সিরাজুল ইসলামের ছেলে ইসরাফিল ও রোজিনার বড় বোন অভয়বাস গ্রামের আব্দুস সামাদের স্ত্রী মর্জিনা খাতুন।

যশোর জেলা আদালতের জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট ইমরান আহম্মেদ অভিযোগ আমলে নিয়ে শার্শার নিজামপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যানকে তদন্ত করে প্রতিবেদন দাখিলের নির্দেশ দিয়েছেন।

বাদীর অভিযোগে উল্লেখ্য করেন, তিনি চার বছর দুবাইয়ে ছিলেন। তাদের সংসারে ১০ বছরের একটি মেয়ে রয়েছে। বিদেশে থাকাকালীন তার স্ত্রী রোজিনা ইসরাফিলের সঙ্গে পরকীয়া সম্পর্কে জড়িয়ে পড়ে। গত চার বছরে নজরুল দুবাই থেকে স্ত্রীকে ১৯ লাখ ৮০ হাজার টাকা পাঠিয়েছেন, যা দিয়ে স্ত্রী রোজিনা খাতুন বসন্তপুর মৌজায় ১০ লাখ টাকা দিয়ে ২৭ শতক জমি কেনেছেন। ওই জমি নিজের নামে লিখে নেন স্ত্রী রোজিনা খাতুন।

আড়াই মাস আগে স্বামী নজরুল ইসলাম দেশে ফিরে রোজিনার পরকীয়াসহ বিভিন্ন অপকর্মের বিষয়টি জানতে পারেন। এসব বিষয় নিয়ে তাদের মধ্যে কথা কাটাকাটি হয়।

গত ৪ মার্চ রোজিনা তার বোন মর্জিনাকে বাড়িতে ডেকে আনেন। তারপর রোজিনা তার বোনের জন্য মিষ্টি আনতে বাজারে পাঠান স্বামী নজরুলকে। এ সুযোগে আসামিরা দেড় ভরি সোনার চেইন, কানের দুল, হাতের বালা ও নগদ ছয় লাখ টাকাসহ বিভিন্ন মূল্যবান জিনিসপত্র নিয়ে পালিয়ে বাড়ি ছেড়ে পালিয়ে যান।

এ ব্যাপারে শার্শার নিজামপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান সেলিম রেজা বিপুল জানান, আমি এখনো আদালতের কোনো চিঠি পাইনি। চিঠি পেলে আদালতের নির্দেশনা অনুযায়ী ব্যবস্থা গ্রহণ করবো।

সূত্র: জাগো

Related Articles

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

Latest Articles