নওগাঁয় পাওনা টাকা চেয়ে অসহায় মহিলার সংবাদ সন্মেলন

0
111

মোঃ রুবেল নওগাঁ প্রতিনিধিঃ নওগাঁয় পাওনা টাকা চেয়ে অসোহায় মহিলার সংবাদ সন্মেলন করেছেন। আজ ১০ মে মঙ্গলবার কোর্ট চত্তরে এ সংবাদ সম্মেলনে আত্রাই উপজেলার সমাসপাড়া ইউনিয়নের জগন্নাথপুর গ্রামের মৃত. মোতালেব হোসেনর স্ত্রী মোছা. হাসিনা খাতুন (৩৮) তিনি বলেন, একই গ্রামের মৃত. আফের উদ্দিন এর ছেলে আত্রাই সাব-রেজিস্ট্রি অফিসের মহরী মো.তারিকুল ইসলাম ফটিক (৪৫) গত, ১০মার্চ ২০২০ইং তারিখে ধানের উপর তিন লক্ষ টাকা ২০ মে ২০২০ইং তারিখে টাকা দিয়ে দিবে বলে একশ’ ও ৫০ টাকা ষ্ট্যাম্পে লিখিত করে টাকা নেই মো. তারিকুল ইসলাম ফটিক এ সময় তার স্ত্রী মোছা. ময়না, মেয়ে, তানজিলা সহ তার বাড়ির কাজের মেয়ে পারুল কে ষ্ট্যাম্পে শাক্ষি হিসাবে সহি করেন। সময় মতো টাকা পরিষদ না করে বিভিন্ন তালবাহানা শুরু করেন। মো.তারিকুল ইসলাম ফটিকের কাছে বারবার টাকা আমার স্বামী এবং আমি চাইলে তিনি কিছু দিন আমাদের কাছে থেকে সময় নায়। তিনি বলেন জমি থেকে ধান তুলে আমার টাকা ফেরত দিবেন।

এর পরেও তিনি টাকা না দিয়ে বারবার টাকা দিবে বলে সময় নিয়ে এখন কোন টাকা না দিয়ে বিভিন্ন রকম হুমকি দিতে থাকে এমন অবস্থায় টাকা না পেয়ে আমার স্বামি আত্মহত্যা করে। আমার স্বামী আত্তহত্যা করার কিছু দিন পর প্রতারক মো.তারিকুল ইসলাম ফটিক তিনি আত্রাই সাব-রেজিস্ট্রি অফিসের মহরী হওয়ার কারণে তিনি জাল ষ্ট্যাম্প জালিয়াতি করে সেখানে আমার স্বামীর সই নকল করে কিছু মিথ্যা শাক্ষি বানিয়ে টাকা মেরে দেওয়ার পায়তারা করছে।

আমি টাকা চাইতে গেলে বিভিন্ন অজুহাত দেখিয়ে আমার স্বামীর বাড়ি থেকে আমাকে বের করে দিয়েছেন প্রতারক ফটিক ও তার লোকজন। প্রতারক মো.তারিকুল ইসলাম ফটিক আমাকে বিভিন্ন সময়ে মোবাইলফোনে প্রাণনাশের হুমকি দিয়ে বলে আত্রাই আসলে মেরে ফেলবে। আমি এই টাকার বিষয়ে আত্রাই বিশা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মো. তোফাজ্জল হোসেন তোফার বরাবর লিখিত অভিযোগ করলেও কোন সুস্থ সুরহা পাইনি।

গরীব মানুষ আমি কি করব কোথায় যাব আমার থাকার যায়গা টুকু নাই। আমি মাননীয় মমতাময়ী মা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কাছে আকুল আবেদন জানায় আমি গরীব মানুষ আমার একটি সঠিক বিচার করে দিবেন আমি অপরাধী হলে আমাকে যা শাস্তি দিবেন মাথা পেতে নিব।

আপনার মন্তব্য