সর্বশেষ

29.8 C
Rajshahi
সোমবার, এপ্রিল ১৫, ২০২৪

রাজশাহী-৩ আসনে আওয়ামী লীগ প্রার্থীর ১৩ দফা ইশতেহার ঘোষণা

টপ নিউজ ডেস্ক : কৃষি, শিক্ষা, কর্মসংস্থান ও যোগাযোগ ব্যবস্থার উন্নয়নের উপর বিশেষ গুরুত্ব দিয়ে আওয়ামী লীগ মনোনিত রাজশাহী-৩ (পবা-মোহনপুর) আসনের সংসদ সদস্য পদ প্রার্থী  মোহাঃ আসাদুজ্জামান আসাদ স্মার্ট পবা-মোহনপুর বাস্তবায়নের অঙ্গিকার করেছেন। আজ বৃহস্পতিবার (২৮ ডিসেম্বর) দুপুরে রাজশাহী নগরীর সিটি হাট সংলগ্ন আওয়ামী লীগ কার্যালয়ে তিনি তার ১৩ দফা নির্বাচনী ইশতেহার ঘোষণা করেন।

আসাদুজ্জামান বলেন, দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন ২০২৪ উপলক্ষে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ নির্বাচনী ইশতেহার ঘোষণা করেছে। সেই ইশতেহার বাস্তবায়নে পূর্ণ অঙ্গিকারসহ আমি পবা-মোহনপুরের জন্য আমার উন্নয়ন পরিকল্পনা প্রনয়ন করেছি।

আসাদুজ্জমান আসাদ তার ১৩ দফা উন্নয়ন পরিকল্পনায় ঘোষণা করে বলেন, তিনি নির্বাচিত হলে পবা ও মোহনপুরকে এগিয়ে নেয়ার জন্য যা যা করা দরকার সবকিছুই করবেন। স্থানীয়দের মতামতের ভিত্তিতে এবং সংশ্লিষ্ট বিষয়ে বিশেষজ্ঞদের পরামর্শের ভিত্তিতে।তিনি নির্বাচিত হলে আইন অনুযায়ি কাজ করবেন। তার প্রথম কাজ হবে পুরানো রাস্তা সংস্কার ও নতুন নতুন রাস্তা নির্মাণ সহ যোগাযোগ ব্যবস্থার উন্নয়নে উদ্যোগ নেয়া।

আসাদুজ্জমান আসাদের ১৩ দফা উন্নয়ন পরিকল্পনাগুলো হলো :

  • স্কুল-কলেজ-মাদ্রাসার অবকাঠামোগত উন্নয়ন, শিক্ষার গুণগত মান উন্নয়ন ও শিক্ষাবান্ধব পরিবেশ গঠনে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ গ্রহণসহ পবা-মোহনপুরবাসীর দীর্ঘদিনের চাওয়া কৃষি বিশ্ববিদ্যালয় স্থাপনের উদ্যোগ গ্রহণ।
  • দক্ষতা উন্নয়নে প্রশিক্ষন প্রদান পূর্বক আউট সোর্সিং, আত্মকর্মসংস্থান, ব্যবসার অনুকূল পরিবেশ সৃষ্টি পূর্বক বিভিন্ন পন্থায় কর্মসংস্থানের সুযোগ সৃষ্টি ও ডিজিটাল বাংলাদেশ বিনির্মাণে সরকারি/বেসরকারি উদ্যোগে আইসিটি বিষয়ক প্রশিক্ষণ প্রদান করা।
  • শস্য/ফসল/খাদ্য উৎপাদনে কৃষকবান্ধব পরিবেশ সৃষ্টি করা।

  • প্রয়োজনীয় রাস্তা-ঘাট, ব্রিজ-কালভার্টসহ নওহাটা শাহ মখদুম বিমানবন্দরকে আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর হিসেবে গড়ে তোলার জন্য কার্যকর ব্যবস্থা গ্রহণ করা।
  • পবা-মোহনপুরের বিভিন্ন স্থানে পর্যটন কেন্দ্র/স্পট নির্মাণ
  • পবা-মোহনপুরের উল্লেখযোগ্য বাণিজ্যিক স্থামসমূহে রাজশাহী সিটি কর্পোরেশনের আদলে টেকসই আলোর ব্যবস্থা করা।
  • মসজিদ, মন্দির, গির্জাসহ সকল ধর্মীয় প্রতিষ্ঠানের অবকাঠামোগত উন্নয়ন নিশ্চিতকরণ।
  • গণকবর, বধ্যভূমি চিহ্নিত ও স্মৃতি ফলক স্থাপন।
  • জ্ঞানচর্চা ও বই পড়ার অভ্যাস গড়ে তোলার জন্য পাঠাগার স্থাপন ও পাঠক সমাবেশ করা।

  • পবা-মোহনপুরের অন্তর্গত উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স, ইউনিয়ন স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স, কমিউনিটি হেলথ ক্লিনিকের স্বাস্থ্যসেবার মন বৃদ্ধিসহ সবার জন্য স্বাস্থ্য সেবা নিশ্চিত করা।
  • পবা-মোহনপুরের জণ্য একটি আধুনিক ও সুষ্ঠু বর্জ্য ব্যবস্থাপনার উদ্যোগ গ্রহণ। বর্জ্য শোধনাগার ও খাল-বিল, নদী-নালার পানি দূষণমুক্ত করার ব্যবস্থা করা।
  • মানবসম্পদ উন্নয়নে প্রয়োজনীয় প্রশিক্ষণ ও সহযোগিতা প্রদান।
  • দীর্ঘদিন থেকে অবহেলিত জুট মিল ও সুগার মিলের উন্নয়ন ও উৎপাদন বৃদ্ধির জন্য কার্যকর ব্যবস্থা গ্রহণ করা।

সম্পাদনায় : হাবিবা সুলতানা

Related Articles

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

Latest Articles